গণতন্ত্র

Democracy is a Government by the cattle, of the cattle and for the cattle

কোন এক রাষ্ট্রবিজ্ঞানীর বইয়ে গণতন্ত্রের এ সংজ্ঞা পড়েছিলাম, লেখকের নামটা আজ আর মনে পড়ছে না। তবে গণতন্ত্র চর্চার নামে বাংলাদেশে যে রাজনৈতিক বুনো ষাড়ের লড়াই চলছে তাতে গণতন্ত্রের সংজ্ঞাটিকে যথার্থ বলেই মনে হয়।

গণতন্ত্র কি? এ প্রশ্ন যদি করা হয় সাধারণ জনতার কাছে, আমি নিশ্চিত, ৯৯% জনতাই সঠিক জবাব দিতে পারবে না। গণতন্ত্র মুক্তি পাক আর গোল্লায় যাক তাতে তাদের কি আসে যায় তা তারা জানে না, তারা একটা বিষয়ই জানে, নিরঙ্কুশ আনুগত্য (ইচ্চেয় বা বাধ্যহয়ে)। Continue reading “গণতন্ত্র”

তথ্য সন্ত্রাস ও বর্বরতার শিকার ইসলামী আন্দোলন

২৮ অক্টোবর ২০০৬। পবিত্র ঈদ-উল-ফিতরের ছুটির পরে প্রথম অফিস। পুরো অফিস জুড়ে ছুটির আমেজ। কোলাকুলি, গালাগালি (গালে গালে যে মিলন), কুশল বিনিময় করেই অফিস শেষ করে দুপুরে বেড়িয়ে পড়ি। অফিসের অবসরে [email protected]@!162202 [email protected]@!162203 নামে একটা ব্লগ পোস্ট করেছিলাম, রাজনৈতিক ময়দান যে কতটা উত্তপ্ত হতে পারে তার একটা আশংকা লিখেছিলাম পোস্টে। তাই অফিস শেষ করে একটু পল্টন ময়দান ঘুরে দেখতে ইচ্ছে হলো খুব।

দুপুর সোয়া একটায় অফিস থেকে বেড়িয়ে পল্টন ময়দানের কাছাকাছি এসে দেখলাম পুরোটাই পুলিশের দখলে। পুলিশের বেস্টনি ভেদ করে পল্টন ময়দানের দিকে যাওয়ার দু:সাহস হলো না বিধায় ধীরে ধীরে দৈনিক বাংলা মোড় হয়ে পল্টন মোড়ের দিকে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিলাম। কিন্তু দৈনিক বাংলা মোড়ের কাছে জামায়াতে ইসলামীর কর্মীদেরকে দেখলাম পুরো রাস্তাটা মানববন্ধনি দিয়ে ঘিরে রেখেছে। কিছুতেই কাউকে রায়তুল মোকাররমের উত্তর পার্শ্বের রাস্তায় ঢুকতে দিচ্ছে না। একটু এদিক ওদিক করে অপেক্ষাকৃত দূর্বল একটা দিক থেকে আস্তে করে ঢুকে পড়লাম। মুখে হালকা ছাগুলে দাড়ি থাকায় কিছুটা দ্বিধা সত্ত্বেও ভেতরে ঢুকতে দিল। আসলে দলটাতো কট্টর আস্তিক অর্থাৎ বিশ্বাসীদের দল। খুব সহজেই ওরা বিশ্বাস করে এবং কখনো কখনো মানুষকে বিশ্বাস করে চরমতম মূল্য দিতে হয় ওদের। Continue reading “তথ্য সন্ত্রাস ও বর্বরতার শিকার ইসলামী আন্দোলন”

নির্দলীয় তত্ত্বাবধায়ক সরকার

গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশের মহামান্য রাষ্ট্রপতি স্বীয় দায়িত্বের অতিরিক্ত হিসেবে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের প্রধান উপদেষ্টার দায়িত্ব গ্রহণ করায় দেশের আপামর জনতা স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলেছে, দেশ পেয়েছে অনিশ্চয়তা থেকে মুক্তি। কিন্তু দেশের সাধারণ মানুষ খুশী হলেও জনবিচ্ছিন্ন কিছু অসাধারণ মানুষেরা, মগজের ভারে যারা চলৎশক্তি হারিয়ে ফেলেছে তারা রাষ্ট্রপতির এ মহতি উদ্যোগকে অসাংবিধানিক ও অনৈতিক বলে অভিহিত করেছেন। Continue reading “নির্দলীয় তত্ত্বাবধায়ক সরকার”

মহামান্য রাষ্ট্রপতির কাছে আকুল আবেদন

মহামান্য রাষ্ট্রপতি, জাতির এ ক্রান্তিলগ্নে নির্দলীয় তত্ত্বাবধায়ক সরকারের প্রধান উপদেষ্টার গুরুদায়িত্ব স্বীয় কাধে গ্রহণ করে দেশের ১৪ কোটি জনতার মনে যে স্বস্তি ফিরিয়ে দিয়েছেন তার জন্য আপনাকে জানাই প্রাণঢালা অভিনন্দন ও মোবারকবাদ। শারীরিক অসুস্থতা ও বার্ধ্যক্যের পেরেশানী সত্ত্বেও দেশের জনতার ভূলুষ্ঠিত জান ও মাল রক্ষার্থে সময়োপযোগী সিদ্ধান্ত জাতিকে অনিশ্চিত অন্ধকার থেকে মুক্তি দিয়েছে, তা জাতি চীরদিন সশ্রদ্ধচিত্তে স্মরণ করবে।

বিগত কয়েকটা দিন স্মরণকালের জঘন্যতম যে নারকীয় তান্ডব ১৪ দলীয় জোট দেশব্যাপী চালিয়েছে তা দেশের আম-জনতাকে ভীত সন্ত্রস্ত ও উৎকন্ঠিত করে তুলেছে। দেশের জনগনের অধিকার আদায়ের নামে নিরীহ নাগরিকদের প্রাণ স্পষ্ট দিবালোকে যে পৈশাচিক উন্মত্ততায় হরণ করা হলো তা বিশ্ববাসীকে হতবাক করে দিয়েছে। যে শিশু এ নিসংশতা দেখেছে সে শিশুর পক্ষে আর কোনদিনও কি সম্ভব হবে এ বিভ্যৎস দৃশ্য মন থেকে মুছে ফেলা? না সম্ভব নয়, বরং এ দৃশ্যের সাথে যোগ হবে আরো হাজারো হরর কল্পনা যা শিশুটিকে তাড়িয়ে বেড়াবে আমৃত্যু অনিশ্চয়তার দিকে। আমাদের ভবিষ্যৎ প্রজন্ম আর কোন দিনই নিজেদের নিরাপত্তা নিয়ে নিশংসয় হতে পারবে না। যে মায়েরা টগবগে তরুনদের পিটিয়ে পিটিয়ে হত্যা করে উল্লাস করেতে দেখেছেন মানুষবেশী হায়েনাদের, তাদের পক্ষে কি আর কখনো সম্ভব হবে নাড়ীছেড়া ধন সন্তানদের ঘরের বাইরে পাঠিয়ে একদন্ড স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলার। না সম্ভব নয়, বাংলায় মায়েদের চোখে ভাসবে হায়েনাদের বিভৎস মুখ, পৈশাচিক উল্লাস। Continue reading “মহামান্য রাষ্ট্রপতির কাছে আকুল আবেদন”