নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের দাম বাড়ছেই

বিশ্ববাজারে চালের দাম কমতে থাকলেও বাংলাদেশে লাগামহীন দামবৃদ্ধি অব্যাহত রয়েছে। দাম বাড়ছে ডাল, তেল, মরিচ, চিনি, আটাসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যের। কমছে সাধারণ মানুষের আয় পাল্লাদিয়ে কমছে ক্রয় ক্ষমতা। নিম্নবিত্তের মানুষের পাশাপাশি মধ্যবিত্তের ভদ্রলোকেরাও লাজ-শরমের মাথা খেয়ে, “মিডলক্লাস সেন্টিমেন্ট”কে ছুড়ে ফেলে প্রাণ বাঁচাতে দাড়াচ্ছেন ওএমএসের লাইনে। দ্রব্যমূল্যসহ অনেককিছুই সরকারের হাতে নেই অকপটে এমন কথা স্বীকারও করেছেন আওয়ামী লীগের উপদেষ্টামণ্ডলীর সদস্য ও সাবেক খাদ্যমন্ত্রী আমির হোসেন আমু। Continue reading “নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের দাম বাড়ছেই”

নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের দাম বাড়ছেই

দ্রব্যমূল্য বাড়ছে লাফিয়ে লাফিয়ে। চলতি সপ্তাহেও তেলের দাম লিটার প্রতি ১১ টাকা বেড়েছে। বেড়েছে মোটা চালের দামও। কেজি প্রতি এক সপ্তাহে ১ টাকা থেকে দেড় টাকা বৃদ্ধি পেয়েছে। ভরা মৌসুমেও সবজির দাম আকাশছোঁয়া। বার্ড ফ্লু আতংক থাকার পরও কেজি প্রতি ৫ টাকা বেড়েছে ব্রয়লার মুরগিতেও। আর তাই দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি রোধে চরম ব্যর্থতায় মহাজোটের নেতৃবৃন্দ মধ্যে হতাশা দেখা দিয়েছে। দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে ব্যর্থতায় খোলামেলা সমালোচনা করেছেন মহাজোট সরকারের প্রধান শরীক জাতীয় পার্টি প্রধান সাবেক স্বৈর শাসক এরশাদ। ইনু বলেন, দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে সরকারের ব্যর্থতা গোপনের সুযোগ নেই। কমকথা বলে দ্রব্যমূল্যের উর্ধ্বগতি রোধে কার্যকর পদক্ষেপ নিতে সংশ্লিষ্ট মন্ত্রীদের পরামর্শ দিয়েছেন আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা মণ্ডলীর সদস্য সুরঞ্জিত সেনগুপ্ত। বাজারমূল্য নিয়ে মন্ত্রীদের ভেবে চিন্তে কথা বলারও উপদেশ দেন তিনি।
Continue reading “নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের দাম বাড়ছেই”

নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের দাম বাড়ছেই

শুক্রবারের বাজার দর : চলতি সপ্তাহেও প্রতি কেজিতে দাম বেড়েছে ২ থেকে ৩ টাকা। চালের দাম আরো বাড়ার আশঙ্কা করছে ব্যবসায়ীরা ।  চালের দাম-মিনিকেট পাইকারি ৪৯-৫০ টাকা, খুচরা ৫১-৫২ টাকা, পাড়ি পাইকারি ৪০-৪১ টাকা, খুচরা ৪২-৪৩ টাকা, বি আর (২৮) পাইকারি ৪৪-৪৮ টাকা, খুচরা ৪৯-৫০ টাকা, নাজির পাইকারি ৪৪-৪৬ টাকা, খুচরা ৪৭-৫১ টাকা, স্বর্ণা পাইকারি ৩৫-৩৬ টাকা, খুচরা ৩৬-৩৭ টাকা, মোটা চাল পাইকারি ৩৪-৩৫ টাকা, খুচরা ৩৬-৩৭ টাকা, হাসকি পাইকারি ৩৫-৩৬ টাকা, খুচরা ৩৭-৩৮ টাকা, পোলাও চাল ৮৫-৯০ টাকা। Continue reading “নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের দাম বাড়ছেই”

নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের দাম বাড়ছেই

শুক্রবারের বাজার দর: প্রতি কেজি করলা ৬০ টাকা, বরবটি ৫০ টাকা, শিম ৪৮-৫০ টাকা, গোলবেগুন ৩৫-৪০ টাকা, ফুলকপি ৩০-৩৫ টাকা, পাতাকপি ২০-২৫ টাকা, পটল ২৫ টাকা, পেঁপে ১২ টাকা, শসা ৩০ টাকা, মুলা ১৫ টাকা, কাঁচা মরিচ ৪০ টাকা, টমেটো ৫০-৬০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। Continue reading “নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের দাম বাড়ছেই”