প্রেম পরকীয়া প্রতিশোধ প্রতিরোধ

সখি ভালোবাসা কারে কয়, সে কি কেবলি যাতনাময়, সেকি কেবলই চোখের জল, সেকি কেবলই দুঃখের শ্বাস, লোকে তবে করে কি সুখেরই তরে এমন দুঃখের আশ…
ভালোবাসা! পৃথিবীতে ভালোবাসার চেয়ে মধুর কোন শব্দ খুঁজে পাওয়া যায় কি? হ্যা, যায়। ‘মা’ শব্দটি সমগ্র বিশ্বে সন্দেহাতীতভাবেই সবচেয়ে মধুর, সবচেয়ে আবেগময়। তবে সে আবেগের পেছনে কেবল ভালোবাসারই জয়গান। মায়ের ভালোবাসায় অন্ধকার মাতৃজঠরে একটু একটু করে বেড়ে ওঠে ভ্রুণ, মায়ের ভালোবাসায় নির্ভয়ে শিশু ভূমিষ্ট হয় পাপিষ্ট ধরায়, মায়ের আদরে সোহাগে ধীরে ধীরে বেড়ে ওঠে পরিপূর্ণ আদম-হাওয়া। তাই, পৃথিবীতে যে কাউকেই জিজ্ঞেস করি না কেন, একই সুর শুনতে পাই, ভালোবাসি মাকে। নির্ভেজাল, নিঃস্বার্থ ভালোবাসা মায়ের আচল ছাড়া মিলে না যে আর কোথাও।
অনেকে ভালোবাসাকে আগুনের সাথে তুলনা করেন, তবে মা বলেন, “ভালোবাসা পানির মতো, নিম্নগামী, পূর্ব পুরুষ থেকে উত্তর পুরুষে প্রবহমান”। তাই কাউকে যদি ভেবে চিন্তে জবাব দিতে বলা হয়, তখন অনেকেই জবাব দেবেন, সন্তানকেই সবচেয়ে বেশী ভালোবাসেন তিনি। সেখানেও ঐ মা-বাবার ভালোবাসারই জয়। Continue reading “প্রেম পরকীয়া প্রতিশোধ প্রতিরোধ”

ভালোবাসার সমীকরণ

সবকিছু ভাগ করা যায়, ভালোবাসা ভাগ করা যায় না…
টিভি এ্যাডের কল্যাণে গানটি স্মৃতিতে খোদাই হয়ে গেছে তবে গানের মূল অর্থটি আমার উর্বর মস্তিস্ক বুঝে উঠতে পারেনি।
আসলেই কি ভালোবাসা ভাগ করা যায় না?
মানুষের হৃদয়ে কার স্থান বেশি, ভালোবাসার নাকি ঘৃণার।
বাজি ধরে বলা যায় মানুষের অন্তর ভালোবাসায় পরিপর্ূণ। দুধে পরিপূর্ণ বালতিতে হয়তো মরা মাছির মতো ভেসে বেড়াচ্ছে অস্পৃশ্য ঘৃনা।
এতো যে ভালোবাসা তা কি কখনো একজনের জন্য হতে পারে না হওয়া উচিত। Continue reading “ভালোবাসার সমীকরণ”